চায়নার কৃত্রিম সূর্য স্থির ছিল ১০৫৬ সেকেন্ড!

চায়নার কৃত্রিম সূর্য স্থির ছিল ১০৫৬ সেকেন্ড!

চায়নার আর্টিফিশিয়াল সূর্য ১২০ মিলিয়ন ফারেনহাইটে উপনীত হয়ে নিউক্লিয়াস ফিউশনের রেকর্ড ভেঙেছে।

গবেষকরা একটি নিউক্লিয়ার প্রসেস নিয়ে এসেছেন যা নক্ষত্রকে পৃথিবীতে শক্তি দিয়ে মানব সভ্যতার ক্রমবর্ধমান শক্তির চাহিদা মেটানোর জন্য গুরুত্বপূর্ণ একটি রেকর্ড ভেঙেছে। চায়নার আর্টিফিশিয়াল সূর্যের ফিউশন ফ্যাসিলিটির একটি দল ৩০শে ডিসেম্বর ২০২১ সালে বলেছিলেন, তারা ১২০ মিলিয়ন ডিগ্রি ফারেনহাইট প্লাজমা তৈরি করতে পারবে( ৭০ মিলিয়ম ডি গ্রি সেলসিয়াস) এবং সেটাকে ধরে রাখতে পারবে ১, ০৫৬ সেকেন্ড।

চায়নার কৃত্রিম সূর্য স্থির ছিল ১০৫৬ সেকেন্ড!

১৫ বছরের অপারেশনের পর , তারা এ তাপমাত্রা ও সংবরণ সময় অনেক পূর্বেই অর্জন করেছে কিন্তু এটিকে কখনোই গুরুত্বপূর্ণ ফিউশনের মডেল হিসেবে উপস্থাপন করতে পারেনি। Gong Xianzu বলেন, আমরা ১২০ মিলিয়ন ডিগ্রি সেলসিয়াস প্লাজমার তাপমাত্রা ১০১ সেকেন্ড পর্যন্ত অর্জন করতে পেরেছি। আর এইবার স্টিডি-স্টেট প্লাজমার স্থায়িত্ব ছিলো ১,০৫৬ সেকেন্ড যা ৭০ মিলিয়ন ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রার কাছাকাছি। টোকামার্ক, এই ডোনাট সাইজের EAST রিয়েক্টরকে “আর্টিফিশিয়াল সূর্য বলতেই পছন্দ করছেন কারণ এটি নক্ষত্রের ফিউশন প্রসেসকে রেপ্লিকেট করে। এই প্রসেস সেই এনার্জি সরবরাহ করে যা স্টেলার বডি দ্বারা বিকিরিত হয়।

যদি বিজ্ঞানীরা নক্ষত্রকে পৃথিবীতে রেপ্লিকেট করতে সক্ষম হয় তবে এটি নিরাপদ, টেকশই ও পরিবেশ বান্ধব এক প্রাচুর্যময় এনার্জি সোর্স হিসেবে কাজ করবে। এই ফিউশন প্রসেস অন্যান্য Fission Process থেকে আলাদা যা নিউক্লিয়ার পাওয়ার প্লান্টে ব্যবহার করা হয়। ভারী মৌলগুলির পরমাণুকে আলাদা করার পরিবর্তে এটি হালকা উপাদানগুলির পরমাণুকে ভারী পরমাণু তৈরি করতে বাধ্য করে। সুপার হট প্লাজমাতে, আয়োনিত পরমাণুর গ্যাস যা নক্ষত্র তৈরি করে, তীব্র গ্রেভিটেশনাল ফোর্সের চাপে হাইড্রোজেন পরমাণুগুলিকে উচ্চগতিতে একসাথে হিলিয়াম তৈরি করতে বাধ্য করে।

একটি একক হিলিয়াম পরমাণুতে পর্যাপ্ত ভর নেই যেমনটি দুটি হাইড্রোজেন পরমাণুতে রয়েছে। আর ভরের এই তারতম্য থেকে এনার্জি নির্গত হয় যা নক্ষত্র দ্বারা বিকিরিত হয়ে থাকে। এই স্টেলার প্রসেসটির প্রতিলিপি তৈরি করার জন্য, টোকামার্ককে অবশ্যই শক্তিশালী চোম্বকক্ষেত্রের মধ্যে প্লাজমাকে সীমাবদ্ধ রেখে কয়েক মিলিয়ন ডিগ্রি ফারেনহাইট পর্যন্ত লেজার দিয়ে ভারী হাইড্রোজেন পরমাণু গরম করতে হবে। টোকামার্কের প্লাজমার তাপমাত্রা নক্ষত্র থেকেও উত্তপ্ত হওয়া প্রয়োজন যেখানে ফিউশন প্রসেস ৬০ মিলিয়ন ফারেনহাইট পর্যন্ত ঘটে থাকে। এর কারণ হলো পৃথিবীর বিজ্ঞানীরা নক্ষত্রের অভ্যন্তরের তীব্র ক্ষমতাশালী গ্রেভেটিকে প্রতিলিপি করতে পারবেনা। এর ক্ষতিপূরণ দেয়ার জন্য প্লাজমাকে ২৭০ মিলিয়ন ফারেনহাইট তাপমাত্রায় গরম করতে হয় যে তাপে টোকামার্কের এটমিক নিউক্লি যথেষ্ট দ্রুত গতিতে ভেঙে পড়বে নিউক্লিয়ার ফিউশন কিক করার জন্য। আরও দেখুনঃ ২০২১ ও আমাদের বৈজ্ঞানিক অর্জন

তথ্যসূত্রঃ

Adsense Condition: চায়নার কৃত্রিম সূর্য স্থির ছিল ১০৫৬ সেকেন্ড!/চায়নার কৃত্রিম সূর্য স্থির ছিল ১০৫৬ সেকেন্ড!

hsbd bg