অক্টোপাস কী স্পেস থেকে এসেছে?

অক্টোপাস কী স্পেস থেকে এসেছে?

এ পেপার বলছে, নিষিক্ত অক্টোপাসের ডিম কেম্ব্রিয়ান যুগের শুরুতে একটি হিমায়িত ধূমকেতুর উপর চড়ে আমাদের গ্রহে পতিত হয়েছিল। যদিও ২০১৫ সালে অক্টোপাসের জিনোম ম্যাপ করে জানা যায়, অক্টোপাসের নার্ভাস সিস্টেমের জিনগুলো স্কুইড থেকে ১৩৫ মিলিয়ন বছর পূর্বে পৃথক হয়েছে যা কেম্ব্রিয়ান বিস্ফোরণের অনেক পরের ঘটনা।

অক্টোপাস কি মহাকাশ থেকে এসেছে? ২০১৮ সালে Cause of Cambrian Explosion- Terrestrial or Cosmic শিরোনামে প্রকাশিত একটি পেপারে দাবি করা হয়েছিল, অক্টোপাসের ডিএনএ এলিয়েন, সে আমাদের গ্রহ থেকে নয়, স্পেস থেকে এসেছিল। আমিও এই গবেষণাপত্রের উপসংহারে বিশ্বাস করতে চাই যে অক্টোপাস আসলে স্পেস এলিয়েন যাদের ডিম প্রথম হিমায়িত উল্কায় চড়ে আমাদের পৃথিবীতে আসে। কিন্তু কি এমন বিশেষত্ব আছে অক্টোপাসের মাঝে যার জন্য আমরা অক্টোপাসকে স্পেস এলিয়েন বলছি? প্রথমত এর বড় মস্তিষ্ক ও জটিল নার্ভাস সিস্টেম, ক্যামেরার মতো চোখ, তাদের নমনীয় দেহ, LED টেলিভিশনের মতো তাদের শরীরের স্কিন যারা নিজেদের দেহের কালার ও আকার সুইচ করার মাধ্যমে ক্যামোপ্লেজ করতে পারে এবং এ বিস্ময়কর প্রযুক্তি প্রকৃতিতে সহসাই দেখা দিয়েছে। আকস্মিক এ অদ্ভুত প্রযুক্তির বিবর্তন কেনো ঘটেছিলো তা গবেষকদের বিস্মিত করে।

অক্টোপাস কী স্পেস থেকে এসেছে?

তারা দাবি করেন, এ টেরিস্টিয়াল বিবর্তন ঘটেছে কয়েকশত মিলিয়ন বছর অতীতে ধূমকেতুর উপর সমুদ্রে বিধস্ত হওয়া ক্রিপ্টোপ্রিজার্ভড স্কুইড অথবা অক্টোপাসের ডিমের কারণে। গবেষকরা আর একটি এক্সপ্লেইনেশন দেন যে, কোনো এক্সট্রা-টেরিস্টিয়াল ভাইরাস আদিম স্কুইডের প্রজাতির মধ্যে সংক্রমিত হয় যা তাদেরকে খুব দ্রুত অক্টোপাসে পরিণত করে যাদের সম্পর্কে আজ আমরা জানি। কিন্তু যদি অক্টোপাস স্পেস থেকে এসে থাকে তবে সেক্ষেত্রে আমরা মানুষরাও স্পেস থেকে এসেছি এমন কল্পনাও করা যেতে পারে! ৫৪০ মিলিয়ন বছর পূর্বে যে এক্সট্রা-টেরিস্টিয়াল ভাইরাস পৃথিবীতে ক্রাশ করেছিল হয়তো তার পরিণতিতেই বিবর্তন নতুন একটি ডিরেকশন প্রাপ্ত হয়েছে আর আমরা হোমোসেপিয়েন্স সেই এক্সট্রা – টেরিস্টিয়াল ভাইরাসের ফাইনাল উত্তরসূরী। একই কথাটি সত্য হতে পারে অন্যান্য গ্রহদের ক্ষেত্রে, আর এ চক্র অসীমভাবে চলতেই থাকবে( নিশ্চয় ওহকামের রেজরের কথা মনে পড়ছে?)

অক্টোপাস কী স্পেস থেকে এসেছে?
অক্টোপাস দেখতে অনেকটা এলিয়েনেরই মতো। Image Sources: live Science

ব্র‍্যান্ডন স্পেক্টর বলেন, আমি বিশ্বাস করতে চাই কারণ এ ব্যাপারটি খুবই দারুণ ও বিস্ময়কর। এখনো পর্যন্ত এর সাপেক্ষে কোনো স্ট্রং প্রমাণ নেই । আর এ গবেষণার সাথে যে সকল গবেষক জড়িত নয় তাদের এ ব্যাপারে ঘোর আপত্তি আছে। এ গবেষণাপত্র ৩৩ জন গবেষক Journal progress in Biophysics and Molecular জার্নালে প্রকাশ করেন এবং এটি পিয়ার রিভিউড ও যথেষ্ট সাইটেশনও আছে। তারা দাবি করেন, ৫৪০ মিলিয়ন বছর পূর্বের কেম্ব্রিয়ান বিস্ফোরণে আকস্মিক আমাদের পৃথিবীতে বায়ো-ডায়ভার্সিটি দেখা যায়, আমাদের আধুনিক যুগের প্রাণীদের অধিকাংশ ফসিল ৫৪০ মিলিয়ন বছর পূর্বের। তাদের মতে, ৫৪০ মিলিয়ন বছর অতীতে আকস্মিক বিস্ফোরণে বায়ো-ডায়ভার্সিটি তৈরির পেছনে কোন এক এলিয়েন ভাইরাসের হাত আছে যে এক্সট্রা-টেরিস্টিয়াল এলিয়েন উল্কার আঘাতে পৃথিবীতে এসে পতিত হয়। এ পেপারটি “প্যানস্পার্মিয়া” নামক প্রাচীন একটি হাইপোথেসিসকে পুনরায় জাগ্রত করে। এ অনুমান আমাদের পরামর্শ দেয় যে, আমাদের পৃথিবীতে জীবন স্বাধীনভাবে বিকশিত হয়নি। বরং জীবনের বাহক কোনো ধূমকেতু থেকে এটি বীজপ্রাপ্ত হয় যেগুলো ইতিহাসে বিভিন্ন সময় আমাদের গ্রহকে আঘাত করে। এ ধূমকেতুগুলো পৃথিবীকে অভিনব জীবন রূপের সাথে পরিচয় করিয়ে দিতে পারে যা ভাইরাস সহ অন্যান্য গ্রহে বিবর্তিত হয়েছে, অস্বাভাবিক টার্ডিগ্রেডের মতো টেকশই অনুজীব যা নতুন গবেষণায় দেখা গেছে, এমনকি অন্যান্য বিশ্ব থেকে নিষিক্ত প্রাণীর ডিমও।

রুমে একটি অক্টোপাসঃ

আমরা জানি যে অক্টোপাসের কমপ্লেক্স নার্ভাস সিস্টেম রয়েছে, ক্যামেরার মতো চোখ, ক্যামোপ্লেজ করার ক্যাপাসিটি যা বিবর্তিত হয়েছে সহসা এবং ফ্যামলি ট্রি’কে অনুসরণ না করেই। এ পেপারের লেখকরা বলেছেন, এ ধরণের অভিযোজনের জন্য যে জিন তা অক্টোপাসের পূর্বসূরি থেকে আসেনি।

অক্টোপাস যেভাবে নিজের আকার পরির্তন করে মহাকাশযানের ক্ষুদ্র কোনো টানেলে লুকিয়ে থাকতে পারবে ।

এ পেপারের একটি তত্ত্ব মতে, নিষিক্ত অক্টোপাসের ডিম কেম্ব্রিয়ান যুগের শুরুতে একটি হিমায়িত ধূমকেতুর উপর চড়ে আমাদের গ্রহে পতিত হয়েছিল। আর একটি এক্সপ্লেইনেশনে বলা হয়, কোনো এক্সট্রা-টেরিস্টিয়াল ভাইরাস আদিম স্কুইডদের পপুলেশনে ইনফেক্ট হয়েছিল যা তাদেরকে খুব দ্রুত বিবর্তিত হওয়ার অনুমোদন দেয় যেমনটি আজ আমরা জানি। অন্যান্য গবেষকরা এটাকে অতি-দ্রুত এক্সেপ্ট করতে রাজি না। এখানে কোনো সন্দেহ নেই যে আদিম জীববিজ্ঞান খুবই মজার কিন্তু একটা সংশয় থেকে যায় যে তাদের দাবিতে কোনো অসঙ্গতি আছে কিনা। এই পেপারের অনেক দাবি অনুমানের বাহিরে। এমনকি সাহিত্যকেও অনুসরণ করা হয়নি। উদাহরণস্বরূপ স্টেডম্যান বলেন, অক্টোপাসের জিনোম ম্যাপ করা হয়েছে ২০১৫ সালে। যদিও এতে অনেক বিস্ময় ছিল, একটি প্রাসঙ্গিক অনুসন্ধান ছিলো যে, অক্টোপাসের নার্ভাস সিস্টেমের জিনগুলো স্কুইড থেকে ১৩৫ মিলিয়ন বছর পূর্বে পৃথক হয়েছে যা কেম্ব্রিয়ান বিস্ফোরণের অনেক পরের ঘটনা। স্টেডম্যান বলেন, RNA-Based Virus যেমন রেট্রোভাইরাস কোনো না কোনোভাবে স্কুইড থেকে অক্টোপাসে পরিণত হয়েছে আর এ ভাইরাস এমন এক সময় বিবর্তিত হয়েছে যখন আমাদের বিশ্বে প্রচুর পরিমাণ স্কুইড ছিল। স্টেডম্যান বলেন, যে সকল রেট্রোভাইরাসগুলি কোনো হোস্টকে সংক্রমিত করে সেগুলো সুনির্দিষ্টভাবে বিবর্তিত হয়েছে। কিন্তু মহাকাশ-ভিত্তিক কোনো রেট্রোভাইরাস আমাদের গ্রহের জন্য সুনির্দিষ্ট হতে পারেনা এবং “অবশ্যই স্কুইডের মতো কিছুর জন্য যথেষ্ট নির্দিষ্ট নয় যদিনা আপনার কাছে আমাদের গ্রহের কাছাকাছি কোনো গ্রহে অবিশ্বাস্যরকম ভাবে প্রচুর পরিমাণে এ ধরণের স্কুইড থাকে যারা থুথু ফেলেছে এই উল্কায়। তিনি বলেন, আমি মনে করি এ ধরণের অনুমান অসম্ভাব্য। ম্যাক্সপ্লাঙ্ক ইনস্টিটিউটের মলিকিউলার জেনেটিক্সের ভাইরোলজিস্ট কার্লিন মলিন বলেন, যদিও নতুন এ গবেষণা খুবই উপকারী আমাদের গ্রহের উপর মহাবিশ্বের প্রভাব সম্পর্কে চিন্তা করার জন্য। এর সাপেক্ষে এখনো পর্যন্ত কোনো প্রমাণ নেই।

আরও পড়ুনঃ প্রজননক্ষমতাসম্পন্ন জীবন্ত রোবট?

তথ্যসূত্রঃ

Goggle ad sense Condition: অক্টোপাস কী স্পেস থেকে এসেছে?/ অক্টোপাস কী স্পেস থেকে এসেছে?

hsbd bg